বাংলারদূত.কম:

বাড়িতেই মা ও যমজ ভাই মারা যায়। এরপর তাদের লাশ সৎকার করার ব্যবস্থা কিংবা আত্মীয়-স্বজনদের খবর দেওয়ার উদ্যোগ কোনোটিই নেননি এ ব্যক্তি। এভাবেই কেটে গেছে প্রায় এক বছর। এমনই এক দুঃখজনক ঘটনা দেখা মিলল মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের মিনেসোটা রাজ্যে।

রবার্ট কুয়েফলার নামে এক ব্যক্তি এমন ঘটনা ঘটিয়েছেন। তবে ঠিক কি কারণে তিনি তাদের লাশ এতদিন ঘরে সংরক্ষণ করলেন, সে বিষয়ে কোনো ব্যাখ্যা পাওয়া যায়নি। ধারণা করা হচ্ছে, মানসিকভাবে অসুস্থ থাকার কারণেই তিনি এমন কাজ করেছেন।

তিনি কেন এমন কাজ করলেন, এ প্রশ্নের জবাবে রবার্ট বলেন, ‘আমি খুবই আঘাত পেয়েছিলাম। আপনি এমন ঘটনায় কী করতে পারেন?’

স্থানীয় পুলিশের ক্যাপ্টেন ডেলে হ্যাগার বলেন, ৬০ বছর বয়সী কুয়েফলারকে এ সপ্তাহে আটক করা হয়েছে। তার বিরুদ্ধে মৃতদেহ বিকৃতির অভিযোগ আনা হয়েছে।

পুলিশ বলছে, মারা যাওয়ার পর কুয়েফলার তার ভাইয়ের দেহ সরিয়েছে।

তবে প্রাথমিক তদন্তে তার মা ও ভাই স্বাভাবিকভাবে মারা গেছে বলে ধারণা করা হচ্ছে।
তাদের মারা যাওয়ার পর থেকে কুয়েফলারের বাড়িতে নিরবতা নেমে এসেছিল। ফলে তিনি বাড়ির বাগানের পরিচর্যা করেননি। বাড়িতে তাদের উপস্থিতিও দেখা যাচ্ছিল না। অনেকটা পরিত্যক্ত বাড়িতে রূপ নিয়েছিল। বিষয়টি এক প্রতিবেশী লক্ষ্য করে পুলিশকে খবর দেন। এরপর পুলিশ বাড়িতে গিয়ে ঘটনা উদঘাটন করে।
সূত্র : ফক্স নিউজ।

LEAVE A REPLY